Sponsored

চ্যাম্পিয়ন্স লীগের এক ফুটবল ম্যাচের কারনেই মৃত্যুপুরী ইতালি ও স্পেন

প্রাণঘাতী করেনা ভাইরাসের মহামারিতে আক্রান্ত ইউরোপ। এ ভাইরাসে মৃতের সংখ্যায় চীনকেও ছাড়িয়েছে ইতালি ও স্পেন। সবচেয়ে বেশি বিস্তার ঘটেছে ইতালিতে। দেশটিতে আট হাজারেরও বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। স্পেনে মৃতের সংখ্যা চার হাজার ছাড়িয়েছে। তবে এই মহামারির পেছেন রয়েছে ইউরোপের চ্যাম্পিয়ন্স লিগের একটি ফুটবল ম্যাচ।


ইতালির বার্গামো প্রদেশের মিলান’স সান সিরো স্টেডিয়ামে ইতালিয়ান ক্লাব আতালান্তা ও স্পেনের দল ভ্যালেন্সিয়ার মধ্যে এই খেলা অনুষ্ঠিত হয়। ১৯ ফেব্রুয়ারির এই খেলায় প্রায় ৪৪ হাজার দর্শক হয়েছিলো।


বার্গামো শহরের মেয়র জোর্জিও গোরি সাংবাদিকদের বলেন, ‘দর্শকরা খেলা দেখার পর সেখানকার বারগুলোতে ভিড় করে। নিশ্চিতভাবে বলা যায়, সেই রাতেই ব্যাপকমাত্রায় করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঘটেছে।’


এদিকে ইতালির জিওভান্নি হাসপাতালের আইসিউ’ র বিভাগীয় লুকা লরিনিও একই দাবি করেছেন বলে জানায় সংবাদমাধ্যম নিউইয়র্ক পোস্ট।


লুকা লরিনি বলেন, "সেই ম্যাচটি দেখতে মাঠে ৪০ হাজারের বেশি দর্শক ছিলো। আতালান্তা ৪টা গোল করেছে। প্রতিটা গোলেই দর্শকরা একসঙ্গে আনন্দ উপভোগ করেছে। একে অপরকে জড়িয়ে ধরেছে, চুমু খেয়েছে। ওই ম্যাচের দুইদিন পরেই ইতালিতে কমিউনিটি পর্যায়ে এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে।"


প্রসঙ্গত, করোনায় মৃত্যুর সংখ্যার শীর্ষে থাকা ইতালিতে মোট ৮০ হাজার ৫৮৯ জন এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। সেখানে সর্বশেষ পাওয়া তথ্য অনুযায়ী ৮ হাজার ২১৫ জনের মৃত্যু হয়েছে, আর সুস্থ হয়েছেন ১০ হাজার ৩৬১ জন।


ইতালির পর করোনার প্রকোপে মৃত্যুপুরীতে পরিণত হয়েছে ইউরোপের আরেক দেশ স্পেন। সেখানে এখন পর্যন্ত ৫৭ হাজার ৭৮৬ জন রোগী শনাক্ত হয়েছেন, যাদের ৪ হাজার ৩৬৫ জন মৃত্যুবরণ করেছেন। সুস্থ হয়েছেন ৭ হাজার ১৫ জন।